আইএমএফের ঋণের দ্বিতীয় কিস্তি পেল বাংলাদেশ

আন্তর্জাতিক মুদ্রা তহবিলের (আইএমএফ) ঋণের দ্বিতীয় কিস্তির ছাড় পেয়েছে বাংলাদেশ। এর আওতায় ৬৮ কোটি ১০ লাখ ডলার পাওয়া যাবে।মঙ্গলবার (১২ ডিসেম্বর) রাতে অর্থমন্ত্রী আ হ ম মুস্তফা কামাল এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

অর্থমন্ত্রী জানান, মঙ্গলবার ওয়াশিংটনে আইএমএফের প্রধান কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত সংস্থাটির নির্বাহী পর্ষদের বৈঠকে বাংলাদেশকে ঋণের অনুমোদন দেওয়া হয়।

গত অক্টোবরে আইএমএফের প্রতিনিধি দল বাংলাদেশে এসে ঋণ কর্মসূচি পর্যালোচনার পর সংস্থাটির বোর্ডের কাছে ঋণের দ্বিতীয় কিস্তির প্রস্তাব উপস্থাপন করে।

এর আগে গত ২ ফেব্রুয়ারি প্রথম কিস্তিতে ঋণের ৪৪ কোটি ৭৮ লাখ ডলার পায় বাংলাদেশ। ছয় কিস্তিতে ২০২৬ সালের মধ্যে মোট ৪৭০ কোটি ডলার ছাড়ের কথা রয়েছে।

শর্ত সঠিকভাবে পূরণ করতে না পারায় আইএমএফের ঋণের দ্বিতীয় কিস্তি আটকে যেতে পারে বলে আশঙ্কা ছিল। তবে শেষ পর্যন্ত নির্বাচনের আগ মুহূর্তে এই ঋণ ছাড় পাওয়ায় কিছুটা হলেও স্বস্তি ফিরেছে সরকারে।

এমন এক সময় এই ঋণ ছাড় পেল যখন দেশের রিজার্ভ অব্যাহতভাবে কমছে। এই ঋণ পাওয়ার ফলে রিজার্ভের পতন কিছুটা হলেও ঠেকানো যাবে বলে জানিয়েছেন সংশ্লিষ্টরা।